শনিবার, ২৩ জানুয়ারী ২০২১ ৯ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, সময় : রাত ৪:৫৬

শিরোনাম

ফটিকছড়িতে অবৈধ ৫টি ইটভাটা গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে


প্রকাশের সময় :২৮ ডিসেম্বর, ২০২০ ৭:০০ : অপরাহ্ণ
নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
চট্টগ্রাম জুড়ে অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদ কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে জেলা প্রশাসন ও পরিবেশ অধিদপ্তর । আজকে নিয়মিত অভিযানের অংশ হিসাবে ফটিকছড়ি উপজেলায় অবৈধ ভাবে গড়ে উঠা ৫টি ইটভাটা উচ্ছেদ করা হয়। এসময় ফাইন ব্রিকসকে ৩,০০,০০০( তিন লক্ষ) টাকা জরিমান করা করা হয়।

আজ সোমবার ২৮ ডিসেম্বর সকাল ৯টা থেকে সন্ধ্যা ৫টা পর্যন্ত পরিচালিত অভিযানে ইটভাটা পাঁচটি উচ্ছেদ করা হয়। চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন ও পরিবেশ অধিদপ্তর যৌথভাবে অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মারজান হোসাইন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন পরিবেশ অধিদপ্তর চট্টগ্রামের উপপরিচালক, সহকারী পরিচালক, এছাড়াও র‌্যাব, পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস এর সদস্য গণ অভিযানে উপস্থিত ছিলেন। উচ্ছেদকৃত ইটভাটাগুলো হল ফটিকছড়ি উপজেলার মের্সাস জনতা ব্রিকস, মের্সাস ফাইন ব্রিকস, মের্সাস এ বি ব্রিকস, মের্সাস এস এন্ড বি ব্রিকস, মের্সাস জে এন ব্রিকস। মের্সাস ফাইন ব্রিকসকে ৩,০০,০০০( তিন লক্ষ) টাকা জরিমান করা সহ বাকি ইট ভাটায় কাঁচা ইট ও চিমনি ধ্বংস করা হয়।

জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মারজান হোসাইন জানান, ইট ভাটা গুলোর জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে প্রদত্ত লাইসেন্স নেই, নেই পরিবেশগত ছাড়পত্র, বন বিভাগের ছাড়পত্র ও বিএসটিআইয়ের মানপত্র। কৃষি জমি ও পাহাড় থেকে মাটি নিয়ে ইট উৎপাদিত হয়ে আসছিল। কোন কোন ইটভাটার পঞ্চাশ থেকে একশ মিটারের মাঝেই রয়েছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। পরিবেশ অধিদপ্তরের তথ্যানুযায়ী ফটিকছড়ি উপজেলায় ৪১ টি ইটভাটা অবৈধ। ফলে পর্যায়ক্রমে সবগুলো ইটভাটা উচ্ছেদ করা হবে। মহামান্য হাইকোর্টের নির্দেশনা মোতাবেক অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদ কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, চট্টগ্রাম জুড়ে অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

সিএস/কেসিবি/৬ঃ২৭পিএম

ট্যাগ :